Hoop PlusTollywood

Abhisekh Chatterjee: টলিউডে নোংরা রাজনীতি, মেয়ে সাইনাকে বলিউডে লঞ্চ করতে চেয়েছিলেন অভিষেক

অভিষেক চট্টোপাধ্যায় (Abhishek Chatterjee) না থেকেও বারবার থেকে যাচ্ছেন সকলের স্মৃতিতে। হঠাৎই সবকিছু শূন্য করে চলে গিয়েছেন তিনি। কিন্তু শূন্য থেকেই তো নতুন শুরু হয়। তাই অভিষেক- কন্যা সাইনা (Saina Chatterjee) ওরফে ডল-এর জন্য এক নতুন যাত্রার শুরু যার পাথেয় তার বাবার স্বপ্ন। আদরের কন্যা ডলকে নিয়ে অনেক স্বপ্ন দেখতেন অভিষেক। আজও অভিষেকের কেরিয়ারে অভিনীত ফিল্মগুলি দেখলে বোঝা যায়, কোনো বলিউড নায়কের থেকে কম ছিলেন না তিনি। রীতিমত হ্যান্ডসাম বাঙালি নায়ক অভিষেক তৎকালীন সময় তৈরি করেছিলেন নিজের সিক্স প‍্যাক অ্যাবস। কিন্তু সবকিছু হঠাৎই কেমন ওলট-পালট হয়ে গিয়েছিল। রাজনীতি করতে গিয়ে টলিউড আখেরে নিজেরই ক্ষতি করেছিল। একের পর এক ফিল্ম হাতছাড়া হয়ে কর্মহীন করে দেওয়া হয়েছিল অভিষেককে। ঈশ্বরবিশ্বাসী ছিলেন অভিষেক। তাই তাঁর কন্যার মধ্যেই সঞ্চারিত হয়েছিল তাঁর স্বপ্ন।

ডল নিজেই অভিনয়ের ইচ্ছা প্রকাশ করেছিল। কিন্তু অভিষেক টলিউডে নয়, বলিউডে লঞ্চ করতে চেয়েছিলেন ডলকে। এদিন তাঁর স্ত্রী সংযুক্তা (Sanjukta Chatterjee) জানিয়েছেন এই কথা। কিন্তু সংযুক্তা কোনোদিন চান না, ডল অভিনেত্রী হোক। কিন্তু ডল ভীষণ ভাবে চায়। অভিষেকও চাইতেন, মেয়ে অভিনেত্রী হোক। কিন্তু নিজের ইচ্ছা কোনোদিন চাপিয়ে দেননি ডলের উপর। তাঁর শ্রাদ্ধানুষ্ঠানের দিনও ডলের চোখে একটাই স্বপ্ন , সে অভিনেত্রী হতে চায়।

অভিষেক টলিউডে নোংরা রাজনীতিকে পছন্দ করতেন না। তাই টলিউড নয়, তাঁর কাছে কন্যার জন্য শ্রেষ্ঠ ছিল বলিউড। তবে ডলের সম্পূর্ণ দায়িত্ব এখন সংযুক্তার। সংযুক্তা জানিয়েছেন, তিনি নিজে থেকে কারও কাছে যাবেন না। যদি কেউ মনে করেন, ডল বলিউডের প্রজেক্টের জন্য উপযুক্ত, তাহলে তাঁরা নিজেরাই আসবেন।

আপাতত ডলের সামনে অনেক কাজ। নিজেকে সাইনা হিসাবে গড়ে তোলার কাজ। সে জানে, তার বাবা সশরীরে নেই। কিন্তু তাঁর আশীর্বাদের হাত রয়েছে ডলের মাথায়।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Sanjukta Chatterjee (@abhialoka)