Bengali SerialHoop Plus

‘জীবনসাথী’র সেটেই প্রথম আইবুড়োভাত খেলেন অভিনেতা রুদ্রজিত!

টলিউডে এখন একের পর এক বিয়ে। সেই আগের বছর নভেম্বরে বিয়ের সানাই বেজেছে অনির্বাণ আর মধুরিমা। এরপর টলিপাড়ায় একের পর এক জুটি দেবলীনা-গৌরব, সৌরভ-ত্বরিতা, মিমি-ওম, ইমন-নীলাঞ্জন, নীল-তৃণা বেশ জাঁকজমক করে সেরে ফেললেন নিজেদের বিয়ে। তবে, টলিপাড়ায় এখনো বিয়ে শেষ হয়নি। এখনো অনেক জুটি এবছর বিয়ের পিঁড়িতে বসতে চলেছে। যেমন রুদ্রজিত-প্রমিতা, দুর্নিবার-মীনাক্ষী, অঙ্কুশ -ঐন্ড্রিলা। খুব শীঘ্রই রুদ্রজিত আর প্রমিতা এনগেজমেন্ট আর রেজিস্ট্রি বিয়ে করতে চলেছে। নানা পারুল রাঘবেন্দ্র নামে এদের দুজনকে ডাকতে পছন্দ করে বাংলার দর্শক। হ্যা সাত ভাই চম্পার সেটেই এরা প্রেমের সম্পর্কে আবদ্ধ হন।

দুজনেই তাঁদের অভিনয় দক্ষতা দিয়েই জিতে নিয়েছেন সকলের মন। আর সাফল্যের সঙ্গে এগিয়ে চলেছেন তাঁদের কেরিয়ারগ্রাফ ও। পারুল আর রাঘবেন্দ্র এই ফেব্রুয়ারীর ১৪ তারিখেই নিজেদের এনগেজমেন্ট আর রেজিস্ট্রি ম্যারেজ সারবেন পুরুলিয়াতে পরিবার আর কিছু ঘনিষ্ঠ বন্ধুদের উপস্থিতিতে। রুদ্রজিতের গ্রামের বাড়ি পুরুলিয়াতে অযোধ্যা পাহাড়ের কোলে এক বিলাসবহুল রিসর্টে নিজেদের সম্পর্ককে পরিণতি দিতে চলেছে এই কাপল। ১৩ তারিখেই নিজেদের বন্ধুদের নিয়ে পুরুলিয়াতে উপস্থিত হবেন ডেস্টিনেশন এনগেজমেন্টের জন্য। আর সেদিন ঋত্বিক রোশনের ডান্স বিখ্যাত ডান্স ঘুঙ্গরু গানে নাচ করবেন। গত বছরে ফেব্রুয়ারিতে নিজেদের প্রেমের কথা প্রকাশ্যে আনেন আর একবছরের মধ্যে নিজেদের প্রেমকে পরিণতি দিতে চলেছেন।

বর্তমানে রুদ্রজিত জী বাংলার ‘জীবন সাথী’ ধারকবাহিকে অভিনয় করছেন। ধারাবাহিকের শ্যুটিং নিয়ে বেশ ভালোই ব্যস্ত রুদ্রজিত। ইতিমধ্যেই কাজের মধ্যেই শুরু হয়ে গেছে জোর তোড়জোড়। হ্যা আইবুড়ো ভাত খাওয়াও শুরু করে দিয়েছেন অভিনেতা। অবশ্য আইবুড়োভাত খাওয়া শুরুটা হল নিজের কাজের জায়গা থেকেই। হ্যা ‘জীবনসাথী’র সেট থেকেই উদ্বোধন হলো তাঁর আইবুড়ো ভাতের অনুষ্ঠানের।

রুদ্রজিতের খাবার থালা জুড়ে ছিল বাঙালি সব খাবারে। যা যা অভিনেতা খেতে ভালোবাসেন তাই ছিল সব খাবারে। খাবার খাওয়ার আগে ইন্দ্রানী দত্তকে বরণ করতে দেখা গেল রুদ্রজিতকে। অভিনেতা নিজেই নিজের ইনস্টাগ্রাম হ্যান্ডেলে আইবুড়ো ভাত খাওয়ার বেশ কিছু ছবি পোস্ট করলেন। এই দিন নীল পাঞ্জাবী পড়ে হাসিমুখে সব খাবার পরিপাটি করে খেলেন। এরপর অভিনেতা এই ছবি পোস্ট করে সকলকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন এই অনুষ্ঠানের আয়োজকদের। নিমেষে ভাইরাল রুদ্রজিতের আইবুড়োভার খাওয়ার পোস্ট।