Hoop PlusBollywood

ঐশ্বর্যর বিয়ের শাড়ির দাম একজন সাধারণ ভারতীয়র সারাজীবনের রোজগারের সমান

বিয়ের এতগুলো বছর পরেও ঐশ্বর্য রাই বচ্চন (Aishwarya Rai Bachchan) ও অভিষেক বচ্চন (Abhishek Bachchan)-এর বিয়ের ছবি সুপার ভাইরাল। বচ্চন পরিবারের এই বিয়ের অনুষ্ঠান এত বছর পরেও রাজকীয় বিয়ে নামে বিখ্যাত। বিয়েতে ঐশ্বর্যর পরনের শাড়ি এখনও তাঁর অনুরাগীদের কাছে আলোচিত বিষয়।

2007 সালের 20 শে এপ্রিল ঐশ্বর্য ও অভিষেকের বিয়ে হয়। অমিতাভ বচ্চন (Amitabh Bachchan)-এর আরও একটি বাংলো ‘জলসা’-য় বসেছিল তাঁদের বিয়ের আসর। অপরদিকে ঐশ্বর্যর লা মেয়ার অ্যাপার্টমেন্টও আলোয় সজ্জিত করা হয়েছিল। বিয়েতে ঐশ্বর্যর পরনে ছিল সোনালি রঙের কাঞ্জিভরম শাড়ি। এই শাড়িটি ডিজাইন করেছিলেন বিখ্যাত ফ্যাশন ডিজাইনার নীতা লুলা (Neeta Lula)। এর আগেও তিনি ঐশ্বর্যর জন্য বিভিন্ন পোশাক ডিজাইন করেছেন। সাম্প্রতিক কালে জানা গিয়েছে, ঐশ্বর্যর বিয়ের শাড়িটির দাম ছিল পঁচাত্তর লাখ টাকা। সমগ্র শাড়িটি তৈরি হয়েছিল সোনার সুতো দিয়ে। তাতে ডিজাইন করা ছিল অসংখ্য ক্রিস্টালের মাধ্যমে।

ঐশ্বর্যর কেশসজ্জা দক্ষিণ ভারতীয় স্টাইলে হলেও তাঁর পরনে ছিল একাধিক বাঙালি গয়না। এই গয়নাগুলির অধিকাংশই কেনা হয়েছিল কলকাতার ‘অঞ্জলি জুয়েলার্স’ থেকে। এর মধ্যে ছিল ট্র্যাডিশনাল লক্ষতারা হার ও নারকোল ফুল বালা। এছাড়াও জয়া বচ্চন (Jaya Bachchan)-এর মা ইন্দিরা ভাদুড়ি (Indira Bhaduri)-র তরফে নাতবৌয়ের জন্য উপহার হিসাবে ছিল সোনা দিয়ে বাঁধানো লোহা। বাঙালি এয়োস্ত্রীর চিহ্ন হিসাবে এটি মানা হয়। এখনও অবধি নিজের বাঁ হাতে এটি পরে থাকেন ঐশ্বর্য।

এছাড়াও বিয়ের শাড়ির সঙ্গে মানানসই করে ঐশ্বর্যর পরনে ছিল সোনালি রঙের বেল্ট যা ছিল সোনা দিয়ে তৈরি। তবে ঐশ্বর্যর ব্রাইডাল লুককে এখনও অবধি তাঁর শ্রেষ্ঠ লুক মানা হয়নি।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Metronome (@officialmetronome)