Hoop Story

KBC: ভারতীয় রেল নিয়ে প্রশ্নের উত্তরে ২৫ লক্ষ জিতলেন সোনাজয়ী নীরজ, উত্তর জানা আছে?

ভারতের সবচেয়ে জনপ্রিয় গেম শো ‘কৌন বনেগা ক্রোড়পতি’-র মঞ্চে প্রতি শুক্রবার দর্শকদের জন্য হয়ে ওঠে স্পেশ‍্যাল। কারণ শুক্রবারগুলি হয় ‘শানদার শুক্রবার’। শোয়ের সঞ্চালক অমিতাভ বচ্চন (Amitabh Bachchan)-এর সামনে হটসিটে বসেন দুইজন তারকা। শুধুমাত্র গেম নয়, থাকে বিগ বি-র সঙ্গে নিভৃত আলাপচারিতা। চলতি সপ্তাহের শুক্রবার ‘কেবিসি’-র মঞ্চে উপস্থিত হয়েছিলেন অলিম্পিকে ট্র্যাক অ্যান্ড ফিল্ডে ভারতকে প্রথম পদক এনে দেওয়া জ্যাভেলিন থ্রোয়ার নীরজ চোপড়া (Neeraj Chopra) এবং ভারতীয় হকি টিমের গোলকিপার পিআর শ্রীজেশ (P.R.Srijesh)।

তবে এই ‘শানদার শুক্রবার’-এর বৈশিষ্ট্য হল, সমগ্র এপিসোডে মাত্র দুটি লাইফলাইন ব্যবহার করেছেন তাঁরা। পঁচিশ লক্ষ টাকা জেতার জন্য ভারতীয় রেলওয়ে নিয়ে একটি প্রশ্ন করা হয়েছিল নীরজ ও শ্রীজেশকে। প্রশ্নটি ছিল 2019 সালের পঁচিশে ডিসেম্বর ভারতীয় রেলওয়ের তরফে নতুন কোন ট্রেন সার্ভিস চালু করা হয় যা পুরোপুরিভাবে ভিস্তাডোম কোচ দ্বারা সজ্জিত। অপশন ছিল a) জন শতাব্দী এক্সপ্রেস, b) ডেকান এক্সপ্রেস, c) হিমালয়ান কুইন, d) হিম দর্শন এক্সপ্রেস। সঠিক উত্তর ছিল d) হিম দর্শন এক্সপ্রেস। নীরজ ও শ্রীজেশ সঠিক উত্তর দিলেও সময় শেষের সাইরেন বেজে যায়। ফলে নিয়ম অনুযায়ী, এই গেম আর চালিয়ে নিয়ে যাওয়া সম্ভব হয়নি।

অগস্ট মাসে জাপানের টোকিওতে অনুষ্ঠিত অলিম্পিক গেমস-এ ভারতের হয়ে দ্বিতীয় ব্যক্তিগত সোনা জিতেছেন নীরজ। অপরদিকে দীর্ঘ চার দশক পর অলিম্পিক মেডেল জিতল ভারতীয় হকি টিম যার অন্যতম কারিগর শ্রীজেশ।

‘শানদার শুক্রবার’-এ ‘কেবিসি’-র মঞ্চে অমিতাভ, শ্রীজেশ ও নীরজের গলার মেডেলের দিকে ইঙ্গিত করে জিজ্ঞাসা করেন, তিনি কি এই সোনার মেডেলগুলি একটু ছুঁয়ে দেখতে পারেন? এক মিনিটও অপেক্ষা না করে দুই অলিম্পিক তারকা নিজেদের গলা থেকে মেডেলগুলি খুলে বিগ বি-র হাতে তুলে দেন। অমিতাভ অভিভূত হয়ে বলেন, তিনি তো জীবনেও এই মেডেল জিততে পারবেন না, তাই এগুলি ছুঁতে পারা তাঁর কাছে বিরাট ব্যাপার। মেডেল দুটি হাতে নিয়ে অমিতাভ বলেন, সেগুলি যথেষ্ট ভারি। অপরদিকে তখন অমিতাভ বচ্চনের নম্রতায় আপ্লুত দর্শকদের হাততালিতে মুখর হয়ে উঠেছে ‘কেবিসি’-র মঞ্চ।

Related Articles

Back to top button