কিনতে হবেনা নামিদামী প্রোডাক্ট, যেতে হবে না পার্লারে, শিখে নিন ঘরোয়া উপায়ে চুলের যত্ন

প্রোটিন যেমন আমাদের শরীরের খাদ্যের চাহিদা মেটায় ঠিক তেমনই চুলের পুষ্টির জন্য প্রোটিন অত্যন্ত উপকারী একটি উপাদান। চুলের গোড়া মজবুত করতে চুলকে সুন্দর রাখতে নতুন চুল গজাতে প্রোটিন ট্রিটমেন্ট এর জুড়ি মেলা ভার। তবে চিন্তা নেই এর জন্য আপনাকে পার্লারে গিয়ে বেশি বেশি টাকা খরচ করতে হবে না। বাড়িতে কয়েকটি পদ্ধতি স্টেপ বাই স্টেপ ফলো করলেই আপনি সুন্দর ঝলমলে চুল পেয়ে যাবেন।

টক দই: চুলের জন্য প্রোটিন প্যাক বানানোর জন্য অবশ্যই ব্যবহার করবেন টক দই। টক দই চুলের সমস্ত খাবারের অভাব পূর্ণ করে। টক দই চুলকে অনেক বেশি নরম তুলতুলে ও ঝলমলে করে। যাদের চুল রুক্ষ শুষ্ক তারা অবশ্যই সপ্তাহে একদিন ঘরোয়া টক দই লাগাতে পারেন। তবে এক্ষেত্রে কোনভাবেই দোকান থেকে কেনা টক দই ব্যবহার করবেন না।

দুধ: দুধ খেলে যেমন শরীর স্বাস্থ্য ভালো থাকে ঠিক তেমনি কাঁচা দুধ চুলের জন্য খুবই উপকারী একটি উপাদান। চুলকে নরম করতে চুলের সমস্ত খাদ্যের অভাব পূরণ করতে কাঁচা দুধ ব্যবহার করতে পারেন।

ডিম: সপ্তাহে অন্তত একদিন চুলের মধ্যে ডিম লাগালে চুল অনেক বেশি সুন্দর সুস্থ ও সতেজ হয়। যারা চুলে কালার করা তারা অবশ্যই এই প্রোটিন ট্রিটমেন্ট মাসে অন্তত একবার করুন।

মধু: চুলে সপ্তাহে অন্তত ৩ দিন মধু লাগাতে পারলে চুলের প্রোটিনের ঘাটতি অনেকটা দূর হয়।

সবচেয়ে ভালো হয় উপরে বলা প্রত্যেকটি উপাদান যদি একসঙ্গে ভালো করে মিশিয়ে নিন সপ্তাহে একদিন একটা হেয়ার প্যাক হিসেবে লাগিয়ে কিছুক্ষণ পরে কোন মাইল্ড শ্যাম্পু দিয়ে শ্যাম্পু করেন তাহলে চুল অনেক বেশি সুন্দর থাকে।