Hoop PlusTollywood

প্রথমবার সাদামাটা গৃহিণীর চরিত্রে শুভশ্রী, রাজ ফিরে পাচ্ছেন রাজপাট, কবে মুক্তি স্বাতীলেখার ‘ধর্মযুদ্ধ’-এর!

রাজ চক্রবর্তী (Raj Chakraborty) আবারও ফিরছেন টলিউডের রাজসিংহাসনে। করোনা অতিমারীর কারণে তাঁর দুটি ফিল্মের মুক্তি আটকে গিয়েছিল। ‘হাবজি গাবজি’ ও ‘ধর্মযুদ্ধ’ দুটি ফিল্মের উপর থেকে উঠল গ্রহণ। ক্রিসমাসে অবশেষে মুক্তি পাবে ‘হাবজি গাবজি’। আগামী বছরের 21 শে জানুয়ারি মুক্তির পথে ‘ধর্মযুদ্ধ’।

রাজ এই মুহূর্তে বিষয় ভিত্তিক ফিল্ম বানাতে পছন্দ করছেন। 2019 সালে ‘ধর্মযুদ্ধ’-এর ঘোষণা করেছিলেন। 2020 সালে শেষ হয়েছে ফিল্মের শুটিং। 2022-এ মুক্তি পাবে ‘ধর্মযুদ্ধ’। এই ফিল্মের নায়িকা শুভশ্রী গাঙ্গুলী (Subhasree Ganguly)। তবে এই মুহূর্তে ইন্ডাস্ট্রি তাকিয়ে ‘ধর্মযুদ্ধ’-এর দিকে। কারণ এই ফিল্মের মাধ্যমে আবারও পর্দায় দেখা যাবে স্বাতীলেখা সেনগুপ্ত (Swatilekha Sengupta)-কে। চলতি বছর না ফেরার দেশে পাড়ি দিয়েছেন স্বাতীলেখা। আগামী বছর তাঁর অভিনীত শেষ দুটি ফিল্ম ‘বেলাশুরু’ ও ‘ধর্মযুদ্ধ’ মুক্তি পাবে। এখনও প্রেক্ষাগৃহে রয়েছে বেশ কিছু সীমাবদ্ধতা। ফলে আগামী বছর ‘ধর্মযুদ্ধ’ ও ‘বেলাশুরু’-র ক্ষেত্রে স্বাতীলেখা কোশেন্টের দিকে অনেকটাই ভরসা করা যায়। ‘বেলাশুরু’ এমনিতেও ছক ভাঙা ফিল্ম। কাহিনীর কারণে তা হিট হবে, এই কথা অনায়াসেই বলা যায়।

‘ধর্মযুদ্ধ’ কমার্শিয়ালের মোড়কে বার্তাবাহী ফিল্ম। এই ধরনের ফিল্মে স্বাতীলেখার উপস্থিতি স্বাভাবিক ভাবেই ফিল্মের ইতিবাচক দিক ঘোষণা করছে। ‘ধর্মযুদ্ধ’-এ রয়েছেন সপ্তর্ষি মৌলিক (Saptarshi Moulik), পার্ণো মিত্র (Parno Mitra), ঋত্বিক চক্রবর্তী (Ritwik Chakraborty), সোহম চক্রবর্তী (Soham Chakraborty)। ফিল্মে সপ্তর্ষি, শুভশ্রীর স্বামীর ভূমিকায় অভিনয় করছেন। ফিল্মে তিনি পেশায় অটোচালক। ফলে অটো চালানোর শেখার সাথে তাঁর লুকেও পরিবর্তন আনতে হয়েছে।

তবে সপ্তর্ষির একটি আক্ষেপ রয়েছে। রাজ যখন এই ফিল্মটি বানিয়েছিলেন, তখন সমগ্র দেশ ও রাজ্য জুড়ে ধর্ম নিয়ে চলছে কাটাছেঁড়া। সেই সময় ‘ধর্মযুদ্ধ’ মুক্তি পেলে অনেক বেশি প্রাসঙ্গিক হতে পারত। তবে এখনও ধর্ম নিয়ে উন্মাদনা কমে গেলেও থেমে যায়নি। ফলে বর্তমান সময়েও ‘ধর্মযুদ্ধ’-কে দর্শক ভালোভাবেই গ্রহণ করবেন বলে আশাবাদী তিনি। ফিল্ম তৈরির সময় অন্তঃসত্ত্বা ছিলেন শুভশ্রী। কিন্তু অভিনয়ের কারণে মাতৃত্বকালীন শারীরিক ও মানসিক পরিবর্তন সত্ত্বেও নিজেকে ভেবেছেন তিনি। উপরন্তু  নিজের লুক নিয়েও পরীক্ষা-নিরীক্ষা করেছেন তিনি। এই ফিল্মে তাঁর লুকে নেই কোনো চকমকি। অত্যন্ত সাধারণ বধূর চেহারায় ক্যামেরার সামনে দাঁড়িয়েছেন শুভশ্রী। কিন্তু তাতে তাঁর আত্মবিশ্বাসে বিন্দুমাত্র চিড় ধরেনি। আপাতত অপেক্ষা জানুয়ারি মাসের যখন রাজ আবারও ফিরে পাবেন তাঁর রাজপাট।

Related Articles

Back to top button