Hoop Life

Phone Using in Toilet: বাথরুমে ফোন ব্যবহার করেন! অজান্তে নিজের কি ক্ষতি করছেন জানেন?

আপনি কি তাদের মধ্যে একজন যিনি বাথরুমেও মোবাইলফোন সঙ্গে করে নিয়ে যান? কিছুটা সময়ের জন্যও ফোন ছাড়া থাকতে পারছেন না? আপনি তাহলে নিজের অজান্তেই নিজের বিপদ ডেকে আনছেন। আপনি মনে করতে পারেন যে এটা তো খুবই সামান্য ব্যাপার। কিন্তু না, এর ফল পরিশেষে হয়ে উঠতে পারে মারাত্মক।

এক সমীক্ষায় দেখা গেছে, বর্তমানে প্রায় ৯০ শতাংশ মানুষ বাথরুমে মোবাইলফোন সঙ্গে করে নিয়ে যান। ওইটুকু সময়ের জন্য হলেও ফোন নিয়ে বাথরুমে যাওয়া ভীষণ রকম ক্ষতি করছে আপনার।

১. বাথরুমে নানা রকমের জীবাণু ঘুরে বেড়ায়, যেমন- সালমোনেলা (Salmonella), ই কলি (E. Coli), সি ডিফিসিল (C. Difficile), ইত্যাদি। কিছুটা সময়ের জন্য হলেও বাথরুমে ফোন নিয়ে গেলে নিজের অজান্তেই সেই সমস্ত ক্ষতিকারক জীবাণু মোবাইল এর মাধ্যমে আমাদের শরীরে প্রবেশ করতে পারে এবং ঘটাতে পারে নানান ধরনের রোগ।

২. বাথরুমে মোবাইল নিয়ে যাওয়ার ফলে আমাদের নজর এবং মন দুটিই মোবাইলের ওপর কেন্দ্রীভূত হয়ে থাকে। এর ফলে শরীরের ওপর বিভিন্ন রকমের ক্ষতিকারক প্রভাব পরতে পারে। সারাক্ষণ ঘাড় নিচু করে থাকার জন্য শিরদাঁড়া এবং ঘাড়ের বিভিন্ন সমস্যা দেখা দিতে পারে।

৩. ফোনের ওপর পুরোপুরি ফোকাস থাকার ফলে শরীরের স্বাভাবিক কাজকর্মগুলিতে ব্যাঘাত ঘটে। দেখা দিতে পারে গ্যাস্ট্রোইনটেস্টাইনাল সমস্যাও। শরীরের বিভিন্ন অভ্যন্তরীণ শারীরবৃত্তীয় ক্রিয়ায় ব্যাঘাত ঘটতে পারে।

৪. সারাদিনের শ্রমের পর বাথরুমেও যদি মোবাইল নিয়ে যাওয়া হয় তাহলে সেইটুকু সময়ও শরীর এবং মন কোনোটাই ঠিকমতো বিশ্রাম পায় না। অল্পেতেই দুর্বল হয়ে যায় শরীর। মাথাও কাজ করা বন্ধ করে দেয়।

এই ভাবেই নিজের অজান্তেই দিনের পর দিন শরীরের ভিতরে কতটা ক্ষতিকারক প্রভাব পড়ছে তা টেরও পাচ্ছেন না কেউ। বিষয়টিকে বিন্দুমাত্র ভ্রুক্ষেপ না দিয়ে নিজেদের শরীরের ওপরই বিপদ ডেকে আনা হচ্ছে। এখন প্রত্যেকেই সারাদিনের অনেকটা সময় নিজের মোবাইলের সাথে অতিবাহিত করেন। জেনেই হোক বা না জেনে, অনেকেই এভাবে নিজের অমুল্য সময় নষ্ট করেন বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়া প্লাটফর্মে চোখ রেখে। মনে হয়না যে এই সময়টা অপচয় না করে কিছু ভাল কাজে ব্যবহার করলে ভালোই হতো? কিন্তু হালের নিয়মে প্রায় প্রত্যেকেই মোবাইলের প্রতি আসক্ত। এমনকি বাথরুমে যাওয়ার সময়ও মুঠোফোন ছেড়ে থাকা যাচ্ছেনা। বাথরুমে যাওয়ার এই অল্প সময়টুকু যদি ফোন ছাড়া থাকা যায় তাহলে নিজেকে অনেক ক্ষতির হাত থেকে বাঁচানো সম্ভব। তাই সুস্থ-স্বাভাবিক জীবনযাপন করার উদ্দেশ্যে, বাথরুমে মোবাইল ফোন নিয়ে যাওয়ার বদঅভ্যাস ত্যাগ করা প্রয়োজন।

Related Articles

Back to top button