Hoop StoryHoop Viral

Viral: হাত নেই হ্যান্ডলে, মাথায় ভারী বস্তা, অসাধারণ ব্যালেন্সে সাইকেল চালাচ্ছেন যুবক, ভাইরাল ভিডিও

চাঁদ তারো সে চলনা হ্যায় আগে, আসমান সে ভি বড়না হ্যায় আগে…। জীবন গতিময়, জীবনের প্রতি বাঁকে কত লড়াই। মানুষকে মৃত্যুর আগের দিন পর্যন্ত লড়ে যেতে হয়। শুধু এই অবিরাম লড়াই থামাতে নেই। কারণ এর মধ্যেই লুকিয়ে রয়েছে বেঁচে থাকার আসল সার্থকতা।

প্রতিদিন সোশ্যাল মিডিয়ায় কতই না ভিডিও ভাইরাল হয়। কোন সেলিব্রিটি কোন গানে নেচে ইনস্টাগ্রামে রিলস পোস্ট করলেন বা কোন ব্যক্তিত্ব কি বলে ভাইরাল হলেন এতেই ব্যস্ত থাকেন নেটিজেনরা। তবে আবারও চেনা ব্যর্থতার ছকের বাইরে গিয়ে নতুন কিছু মন কাড়ল নেটিজেনদের। সম্প্রতি একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে টুইটারে।

বিখ্যাত শিল্পপতি আনন্দ মাহিন্দ্রা প্রায়শই নিজের সোশ্যাল মিডিয়ায় নানা ভিডিও পোস্ট করে থাকেন। যা সবসময় নেটিজেনদের নতুন করে বাঁচার উদ্যম যোগায়। সম্প্রতি এরকম একটি অনুপ্রেরণামূলক ভিডিও তিনি নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে পোস্ট করেন। এই ভিডিওটিতে প্রায় অবিশ্বাস্য জিনিস দেখা যাচ্ছে। একটি ছেলে মাথায় ভারী বস্তার বোঝা নিয়ে সাইকেলে করে যাচ্ছে। তার দুই হাত সেই বস্তাতেই। হ্যান্ডেলে একটিও হাত নেই অথচ ব্যালেন্সেও একটু নড়চড় হচ্ছে না। এই অবিশ্বাস্য ভিডিও দেখে তো চোখ কপালে উঠে গেছে নেটিজেনদের। দুহাত হ্যান্ডেলের না রেখেও অত ভারী বস্তা মাথায় রেখে কিভাবে একটা মানুষ এরকম ভাবে সাইকেলে ব্যালেন্স রাখতে পারে এই প্রশ্ন বারবার ভাবাচ্ছে সাইবারবাসীদের।

ভিডিওটি পোস্ট করে আনন্দ মাহিন্দ্রা ক্যাপশনে লেখেন,“এই অবিশ্বাস্য ছেলেটির নাম মানব সেগওয়ে। আমার দৃঢ়বিশ্বাস এই ছেলেটির পিঠে একটি জায়রোস্কোপ রয়েছে। কি অদ্ভুত দখলে রয়েছে তার নিজের ভারসাম্যের মধ্যে। কিন্তু আমাকে যা বারবার ব্যাথা দেয় যে তাঁর মতো অনেকেই আছেন আমাদের দেশে, যাঁরা অনায়াসেই প্রতিভাবান জিমন্যাস্ট বা খেলোয়াড় হতে পারেন। কিন্তু প্রশিক্ষণের অভাবে তাঁদের দেখা যায় না…”